অবসরের বয়স বেধে দেওর ভাবনা CPIM এ! কি নীতি বাঁধছে সিপিএম

by Chhanda Basak

ওয়েব ডেস্ক: সংগঠন কে ঢেলে সাজাতে এক গুচ্ছ নিতি নিতে চলেছে CPIM । যার মধ্যে যেমন থাকছে নতুন মুখ কে সামনে আনা তেমনি কমিটি থেকে অবসর নেওর বয়স সীমা বেধে দেওয়া। এমন যদি বাস্তবে হয় তাহলে বিমান বসু, সূর্যকান্ত মিশ্রদের ও সরে দাঁড়াতে হবে নেতৃত্ব থেকে।

অবসরের বয়স বেধে দেওর ভাবনা cpim এ! কি নীতি বাঁধছে সিপিএম

প্রমোদ দাশগুপ্ত ভবনে বৃহস্পতিবার শুরু হয়েছে সিপিএমের দু’দিনের রাজ্য কমিটির বৈঠক। সেখানে উপস্থিত আছেন দলের সাধারণ সম্পাদক সীতারাম ইয়েচুরি। বাংলায় দল ও সংগঠন যে ভাবে চলছে, তা নিয়ে এ দিন বৈঠকের সুরুতেই ইয়েচুরির উষ্মার মুখে পড়তে হয়েছে রাজ্য নেতৃত্বকে। CPIM এর সদ্য সমাপ্ত কেন্দ্রীয় কমিটির বৈঠকে সিদ্ধান্ত হয়েছে, সর্বভারতীয় ক্ষেত্রে প্রধান শত্রু বিজেপি এবং বাংলার ক্ষেত্রে বিজেপি ও তৃনমূল উভয়। বিজেপি বামেদের প্রধান প্রতিপক্ষ হওয়া সত্ত্বেও রাজ্যে বাম নেতাদের প্রচারে অনেক ক্ষেত্রেই বিজেপি ও তৃণমূল কংগ্রেসের বিরুদ্ধে একই রকম নিশানা থাকায় মানুষের মধ্যে ‘বিভ্রান্তি’ তৈরি হয়েছে।

এইদিন এই সূত্র ধরেই ইয়েচুরি প্রশ্ন করেন, সামাজিক মাধ্যমে যে ‘বিজেমূল’ স্লোগান তৈরি হয়েছিল, তাকেই রাজ্য নেতারা নির্দ্বিধায় সেই সব কথা প্রচারে ব্যবহার করলেন। এটা ঠিক হইনি। বাংলায় ২০০৮ থেকেই বামেদের ভোট ক্ষয় চলছে এবং সেই সঙ্গেই সংগঠনের হাল খারাপ হচ্ছে, কেন্দ্রীয় কমিটির রিপোর্টের সূত্রে এই প্রশ্নেও ইয়েচুরির সমালোচনা শুনতে হয়েছে রাজ্য কমিটির নেতাদের। তিনি আর বলেন, দলের নিজস্ব শক্তি বাড়লে তবেই জোট বা নির্বাচনী আঁতাতে কাজ হবে।

কম বয়সীদের দলে আরও জায়গা দিয়ে সামনের সারিতে আনতে হবে, বললেন Gautam Deb

তার পরেই আলোচনাই আসে বয়সের ঊর্ধ্ব সীমা বেধে দেওর কথা। কেন্দ্রীও স্তরে এমন ধরনের একটি কথা বার্তা চলছে। কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য থাকার জন্য বয়সের ঊর্ধ্বসীমা ৭৫। সেই নিতি মেনেই এ বার রাজ্য কমিটিতে থাকার ক্ষেত্রে সর্বোচ্চ বয়স ৭২-এ বাঁধতে চাইছে আলিমুদ্দিন। জেলা কমিটির ক্ষেত্রে অবসরের বয়স হবে ৭০। তারও নীচে এরিয়া কমিটির সদস্যদের জন্য প্রযোজ্য হবে ৬৫ বছরের বয়ঃসীমা। সর্বভারতীয় স্তরের আগেই বাংলায় রাজ্য কমিটিতে নতুন মুখ অন্তর্ভুক্তির বয়স ইতিমধ্যেই ৬০ ধার্য করে দিয়েছে আলিমুদ্দিন। এ বারের সম্মেলনে কমিটি থেকে অব্যাহতি নেওয়ার বয়সও ঠিক করে দেওয়া হচ্ছে। দলের দু’দিনের রাজ্য কমিটির বৈঠকের প্রথম দিনেই সংগঠনে তারুণ্যকে গুরুত্ব দেওয়ার জন্য এই নীতির কথা জানিয়ে দেওয়া হয়েছে বলে সূত্রের খবর।

তৃণমূলের বিকল্প বিজেপি নয়, মানুষ কে বঝাতে হবে, শিলিগুড়ি পুরভোট নিয়ে বললেন অশোক ভট্টাচার্য

তবে যদি আই নিতি কার্যকর করা হয়, তাহলে বিমানবাবু, সূর্যবাবু, রবীন দেব, মদন ঘোষ, নৃপেন চৌধুরীদের মতো রাজ্য নেতৃত্বের বহু পরিচিত মুখকেই একসঙ্গে অবসর নিতে হবে। সেরকমই জেলা নেতৃত্বেও অনেক পুরনো মুখকে সরে দাঁড়াতে হবে নেতৃত্ব থেকে। তার জায়গায় তুলে আনতে হবে তুলনায় কম বয়সের নেতাদের।

এই বিষয়ে রাজ্য কমিটিতে জেলা নেতাদের কেউ কেউ অবশ্য প্রশ্ন তুলেছেন, যে এই ভাবে কখন রাজনীতিতে বয়স সীমা বেধে দেওয়া যাই। আজ শুক্রবার বৈঠকের শেষ দিন, জবাবি বক্তৃতায় দলের অবস্থান ব্যাখ্যা করার কথা রাজ্য সম্পাদক সূর্যবাবুর। কি ব্যাখ্যা দ্যান তিনি সেদিকেই তাকিয়ে এখন রাজনৈতিক মহল।

NEWS24-BENGALI.COM

NEWS24-BENGALI.COM brings to provide the latest quality Bengali News(বাংলা খবর, Bangla News) on Crime, Politics, Sports, Business, Health, Tech, and more on Digital Platform.

Edtior's Picks

Latest Articles

Copyright © 2024 NEWS24-BENGALI.COM | All Rights Reserved.